আরো পড়ুন

জন্মু কাশ্মীরে বাতিল হয়ে গেছে ৩৭০ ধারা। যাতে জন্মু ও কাশ্মীর এর দায়িত্ব নিয়েছেন কেন্দ্রীয় সরকার। একই সঙ্গে কাশ্মীর রাজ্য ভেঙে গঠিত হয়েছে দুটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল জম্মু-কাশ্মীর ও লাদাখ। আর এই নতুন জন্মু কাশ্মীর লাদাখ এর প্রথম সর্বোচ্চ প্রশাসনিক পদ, লেফটেন্যান্ট গভর্নর পদে বসতে চলেছেন অবসরপ্রাপ্ত আইপিএস অফিসার কে বিজয়কুমার।

আরো পড়ুন

১৯৭৫ সালের ব্যাচের আইপিএস অফিসার কে বিজয়কুমার। ১৯৯৮ সাল থেকে দু’বছর শ্রীনগরে বিএসএফের আইজি ছিলেন তিনি। তবে তাঁর কর্মজীবনের সবচেয়ে বড় কৃতিত্ব হল চন্দনদস্যু বীরাপ্পানকে নিকেশ করা। একটা সময় তামিলনাড়ু, কেরল ও কর্ণাটকের ত্রাস ছিল বীরাপ্পান। চন্দন কাঠ ও হাতির দাঁতের অবৈধ ব্যবসার বিশাল সাম্রাজ্য গড়ে তুলেছিল সে। এছাড়া একাধিক রাজনীতিকে অপহরণ করার অভিযোগও তার বিরুদ্ধে ছিল।

২০০৪ সালে চন্দনদস্যুকে খতম করতে বিশেষ টাস্ক ফোর্স গঠন করা হয়। অক্টোবর মাসে অ্যাম্বুলেন্সে করে ছদ্মবেশে পালানোর সময় নিকেশ করা হয় বীরাপ্পানকে। সেই টাস্ক ফোর্সের নেতা ছিলেন কে বিজয়কুমার। এছাড়া তিনি জম্মু-কাশ্মীরের রাজ্যপালের অন্যতম উপদেষ্টাও ছিলেন।

আরো পড়ুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here